ইমাম আহমদ

ইমাম আহমদের মজলিস

ইমাম ইবনে মুফলিহ আল-হাম্বলি বলেছেনঃ قال الحسين بن إسماعيل سمعت أبي يقول كان يجتمع في مجلس أحمد زهاء على خمسة آلاف ، أو يزيدون ، أقل من خمسمائة يكتبون ، والباقي يتعلمون منه حسن الأدب পাঁচ হাজার বা তাঁর অধিক মানুষ ইমাম আহমদের মজলিসে সমবেত হতেন। তাদের মধ্যে পাঁচশ’জন লিখতেন। বাকিরা তাঁর থেকে সুন্দর আদাব …

ইমাম আহমদের মজলিস Read More »

হক বনাম মানুষকে সন্তুষ্ট করা

ইমাম আহমদ বিন হাম্বাল রহিমাহুল্লাহ্ বলেন, “আমি মানুষকে সন্তুষ্ট করা তরক করেছি, যাতে হক কথা বলতে সক্ষম হই।” — সিয়ার আ‘লাম আন-নুবালা قال أحمد بن حنبل رحمه الله:-“تركت رضى الناس حتى قدرت أن أتكلم بالحق”.=سير أعلام النبلاء.

ইমাম আহমদের মৃত্যুতে চার সম্প্রদায়ের মধ্যে শোক

৮৭.১- আল ওয়ারকানী বলেন, আহমদ বিন হাম্বালের মৃত্যুর দিন চার সম্প্রদায়ের লোকেদের মাঝে শোকের ছায়া নেমে এসেছিলো : মুসলিম, ইহুদি, খ্রিস্টান এবং পারসিক[অগ্নি উপাসক]। এদিন বিশ হাজার ইহুদি, খ্রিস্টান ও পারসিক ইসলাম গ্রহণ করে। আবু নুয়ইমের বর্ণনায় এসেছে, দশ হাজার। — ইমাম আবুল ফারাজ ইবনুল জাওযী, মানাকিবু আবি আবদিল্লাহ আহমাদ বিন হাম্বাল

ইমাম আহমদের বাল্যকালঃ

ইবনুল জাওযি বলেন, আমাদের (অনুকরণীয়) ব্যক্তি ইমাম আহমদ বাগদাদে জন্মগ্রহণ করেন। বাগদাদের শুয়ুখদের সাথে হাদিস অধ্যয়নের পর তিনি অন্যত্র জ্ঞান অর্জনের জন্যে পাড়ি জমান। আবু সিরাজ বলেছেনঃ “যখন আমরা মক্তবে আহমদের সাথে থাকতাম, নারীরা শিক্ষককে বার্তা পাঠাতেনঃ “ইমাম আহমদকে আমাদের নিকট পাঠান, যাতে তিনি আমাদের উত্তর লিখতে পারেন।” ইমাম আহমদ যখন তাদের স্থানে যেতেন, তিনি …

ইমাম আহমদের বাল্যকালঃ Read More »

ইমাম আহমদের ইলম অন্বেষণের স্পৃহা

ইমাম আহমদ বলেছেনঃ “মাঝেমধ্যে আমি চেষ্টা করতাম হাদিস শিক্ষার জন্যে যত দ্রুত সম্ভব বের হতে, কিন্তু আমার মা আমার কাপড় ধরে থামাতেন এবং বলতেন, “আযান পর্যন্ত অপেক্ষা করো!”, অথবা “মানুষের ঘুম থেকে উঠা পর্যন্ত অপেক্ষা করো!” [মানাকিব ৪/১৩] ইবনে মানি বর্ণনা করেছেন, “আমি আমার দাদার নিকট হতে ইমাম আহমদ ইবনে হাম্বলের কুফা থেকে ফিরে আসার …

ইমাম আহমদের ইলম অন্বেষণের স্পৃহা Read More »

ইমাম আহমদের (র) জন্ম এবং পিতামাতা

সালিহ ইবনে আহমাদ বলেছেনঃ “আমি আমার পিতার কাছে শুনেছি, তিনি ১৬৪ হিজরির শুরুর দিকে রবিউল আওওয়াল মাসে জন্মগ্রহণ করেন। তিনি মাতৃগর্ভে মার্ভ ( مرو) থেকে আসেন (এবং বাগদাদে জন্ম নেন)। তাঁর পিতা ৩০ বছর বয়সে মারা যান। ফলে যত্নখাতিরের দায়িত্ব মায়ের উপর এসে পড়ে।” ইবনুল জাওযি (র) বলেছেন, “এ কথা দ্বারা সালিহ বুঝিয়েছেন- ইমাম আহমদ …

ইমাম আহমদের (র) জন্ম এবং পিতামাতা Read More »

ইমাম আহমদের বিবাহজীবন

ইমাম আহমদের বিবাহজীবনঃ বিয়ের বয়সঃ চল্লিশ বছরইমাম আহমদ বলেন, “আমি চল্লিশ বছর হবার আগে বিয়ে করিনি।” [মাররুযি] প্রথম স্ত্রীঃ উম্মে সালিহইবনুল জাওযি [র] বলেছেন, তাঁর প্রথম স্ত্রী ছিল সালিহের মা, আব্বাসাহ বিনতে আল-ফাদল। ইমাম আহমদ বলেনঃ ,اقامت معي ام صالح ثلاثين سنة فما اختلفت انا وهي في كلمة “আমি উম্মে সালিহের সাথে ত্রিশ বছর থাকি, …

ইমাম আহমদের বিবাহজীবন Read More »

ফকিরদের কদর

৫১. আল-মাররুযি বর্ণনা করেছেন, আবু আবদুল্লাহ [আহমদ] ফকিরদের ভালোবাসতেন। আমি আর কারও মজলিসে ফকিরদের এমন কদর করতে দেখিনি যেভাবে আহমদ তাঁর মজলিসে করতেন। -ইবনুল জাওযি [র], (মানাকিব)

ইমাম আহমদের হাদিসের প্রথম শিক্ষক

ইমাম আহমদ বাগদাদের আলিমদের সাথে জ্ঞানার্জন শুরু করেন। এরপর তিনি কুফা, বসরা মক্কা, মদিনা, ইয়েমেন, সিরিয়া এবং উত্তর-ইরাকে সফর করেন, প্রত্যেক এলাকার আলিমদের থেকে যা শিখেছেন তা লিখে রাখেন। তিনি বলেছেন, “প্রথম যে শিক্ষকের হাদিস আমি লিখি, তিনি হচ্ছেন (ইমাম) আবু ইউসুফ”। -ইবনুল জাওযি, মানাকিব।

ইমাম আহমদের কুফায় কষ্টকর যাত্রা

[৪.৯] সালিহ বর্ণনা করেছেন, ইমাম আহমদ বলেছেনঃ”কুফায় গিয়ে আমি যে ঘরে থাকতাম, সেখানে ইটের উপর মাথা রেখে ঘুমাতাম। এরপরে আমার জ্বর আসে, আমি মায়ের কাছে ফিরে আসি। আল্লাহ্‌ তাঁর উপর রহম করুন।” [১] “আমার কাছে যদি ৫০ দিরহাম থাকত, তাহলে আমি রাই’-এ (ألري ) জারির ইবনে আব্দুল হামিদের নিকটে যেতাম। আমার কিছু সাথী সেখানে যায়, …

ইমাম আহমদের কুফায় কষ্টকর যাত্রা Read More »